গাজায় যুদ্ধবিরতি নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের প্রস্তাব, রাশিয়া ও চীনের উদ্বেগ

Facebook Twitter Google Digg Reddit LinkedIn StumbleUpon Email

একতা বিদেশ ডেস্ক : জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে যুক্তরাষ্ট্র উত্থাপিত একটি খসড়া প্রস্তাব নিয়ে সম্প্রতি উদ্বেগ জানিয়েছে ভেটো ক্ষমতাসম্পন্ন দেশ রাশিয়া ও চীন। ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী সশস্ত্র সংগঠন হামাসের মধ্যে যুদ্ধবিরতির জন্য মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের একটি পরিকল্পনায় সমর্থন চেয়ে প্রস্তাবটি উত্থাপন করা হয়েছে। কূটনীতিকেরা বলছেন, নিরাপত্তা পরিষদের একমাত্র আরব সদস্যদেশ আলজেরিয়াও প্রস্তাবটিতে সমর্থন দিতে প্রস্তুত নয় বলে ইঙ্গিত দিয়েছে। নিরাপত্তা পরিষদে কোনো প্রস্তাব পাস হতে হলে এর পক্ষে অন্তত ৯টি ভোট পড়তে হয়। তবে প্রয়োজনীয় ভোট পাওয়ার পরও ভেটো ক্ষমতাসম্পন্ন পাঁচ দেশের কেউ যদি ভেটো দিয়ে দেয়, তবে প্রস্তাবটি পাস করা যাবে না। নিরাপত্তা পরিষদে যুক্তরাষ্ট্র, ফ্রান্স, যুক্তরাজ্য, চীন ও রাশিয়ার ভেটো ক্ষমতা আছে। এক সপ্তাহ আগে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন গাজায় তিন ধাপে যুদ্ধবিরতি বাস্তবায়নের প্রস্তাব দেন। তিনি একে ইসরায়েলি উদ্যোগ বলে উল্লেখ করেন। এই পরিকল্পনার প্রতি আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সমর্থন আদায়ের চেষ্টা করছে যুক্তরাষ্ট্র। ওই পরিকল্পনাটি এখনো হামাসের বিবেচনাধীন। বর্তমান খসড়া প্রস্তাবটিতে যুদ্ধবিরতির পরিকল্পনাকে স্বাগত জানানো হয়েছে। এটি ইসরায়েলের কাছে গ্রহণযোগ্য হয়েছে বলেও উল্লেখ করা হয়। হামাসকেও প্রস্তাবটি মেনে নেওয়ার আহ্বান জানানো হয়েছে। অবিলম্বে ও নিঃশর্তভাবে পরিকল্পনাটি পরিপূর্ণভাবে কার্যকরের জন্য দুই পক্ষের প্রতি অনুরোধ জানানো হয়েছে। প্রস্তাবে বলা হয়েছে, প্রথম ধাপে গাজা উপত্যকায় একটি পূর্ণাঙ্গ যুদ্ধবিরতি কার্যকর করতে হবে। দ্বিতীয় ধাপে লড়াইরত পক্ষগুলোকে তাদের মধ্যকার বৈরিতার স্থায়ী অবসান ঘটাতে হবে। কূটনীতিকেরা বলছেন, নিরাপত্তা পরিষদের কয়েকটি সদস্য দেশ প্রস্তাবটি নিয়ে উদ্বিগ্ন। তারা প্রশ্ন তুলেছে যে আসলেই ইসরায়েল এ প্রস্তাব গ্রহণ করেছে কি না। তারা চায় অবিলম্বে যুদ্ধবিরতি কার্যকর এবং জিম্মিদের নিঃশর্ত মুক্তি দেওয়ার দাবির ব্যাপারে পরিষদ অটল থাকুক। যুক্তরাষ্ট্রের পরিকল্পনাটি সংশোধনের প্রস্তাব দিয়েছে রাশিয়া। মস্কো চায় লড়াইরত পক্ষগুলোর মধ্যে সমঝোতার ভিত্তিতে অবিলম্বে, নিঃশর্ত এবং স্থায়ীভাবে যুদ্ধবিরতি কার্যকর হোক। মস্কো আরও চায়, প্রথম ধাপে যুদ্ধবিরতি চলতে চলতেই দ্বিতীয় ধাপের বিষয়ে আলোচনা হোক। মাসের পর মাস ধরে যুক্তরাষ্ট্র, মিসর ও কাতারের প্রতিনিধিরা হামাস ও ইসরায়েলের মধ্যে একটি যুদ্ধবিরতির চেষ্টা করছেন। হামাস বলছে, তারা গাজা উপত্যকায় যুদ্ধের স্থায়ী অবসান এবং গাজা উপত্যকা থেকে ইসরায়েলি বাহিনীর প্রত্যাহার চায়।

Print প্রিন্ট উপোযোগী ভার্সন



Login to comment..
New user? Register..