অ্যান্টার্কটিকায় বিশাল হিমশৈল ভেঙে পড়েছে

Facebook Twitter Google Digg Reddit LinkedIn StumbleUpon Email

একতা পরিবেশ ডেস্ক : প্রায় ১৬শ বর্গকিলোমিটার আকারের একটি হিমশৈল সম্প্রতি ভেঙে পড়েছে বলে বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন। তবে জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে এটি হয়নি বলেও জানান তাঁরা। ইউরোপ ও অ্যামেরিকার স্যাটেলাইট থেকে পাওয়া তথ্য বলছে, ২৪ ও ২৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে যে কোনো একসময় ডি২৮ নামের ঐ বরফের টুকরো ভেঙে থাকতে পারে। অ্যান্টার্কটিকার পূর্বাঞ্চলে অবস্থিত অ্যামেরি আইস সেল্ফ থেকে এটি পৃথক হয়ে গেছে। গত দশ বছর ধরে এমনটি হওয়ার প্রক্রিয়া চলছিল বলে জানান বিজ্ঞানীরা। ‘তুষারপাতের কারণে আইস সেল্ফের ওজন বেড়ে যায়। কিন্তু আইস সেল্ফ সাধারণত একই ওজনে থাকতে পছন্দ করে। তাই একসময় অতিরিক্ত ওজন ঝরে পড়ে, ’ বলে জানান মার্কিন গ্লেসিওলজিস্ট হেলেন আমান্ডা ফ্রিকার। তিনি জানান, ডি২৮ হিমশৈলের পুরুত্ব প্রায় ২১৫ মিটার এবং সেখানে বরফের পরিমাণ প্রায় ৩১৫ বিলিয়ন টন। অ্যান্টার্কটিকার পূর্বাঞ্চলে সাধারণত মহাদেশটির পশ্চিমাঞ্চল ও গ্রিনল্যান্ডের মতো বৈশ্বিক উষ্ণতার প্রভাব পড়ে না বলে জানান বিজ্ঞানীরা। বছর দুয়েক আগে ডি২৮-এর চেয়ে তিনগুন বড় বরফের টুকরো ভেঙে পড়লে জলবায়ু পরিবর্তন নিয়ে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছিল। তবে এবারের বিষয়টি জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে হয়নি। আমান্ডা ফ্রিকার বলছেন, ‘এটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ যে, মানুষ যেন বিভ্রান্ত হয়ে মনে না করে যে, জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে এমনটি হয়েছে।’

Print প্রিন্ট উপোযোগী ভার্সন



Login to comment..
New user? Register..