ডেঙ্গু: মৃত অর্ধশতাধিক ছড়িয়েছে সারাদেশে

Facebook Twitter Google Digg Reddit LinkedIn StumbleUpon Email
একতা প্রতিবেদক : দেশে এডিস মশাবাহিত ডেঙ্গু পরিস্থিতি ভয়াবহ আকার নিয়েছে। সারাদেশে এ রোগে আক্রান্তের সংখ্যা গত সপ্তাহে কেবল সরকারি হিসেবেই ২১ হাজার ছাড়িয়েছে, মৃতের সংখ্যা অন্তত অর্ধশতাধিক বলছে গণমাধ্যমগুলো। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী কেবল ১ আগস্টই বিভিন্ন হাসপাতালে দেড় হাজারের বেশি নতুন ডেঙ্গু রোগী চিকিৎসা নিয়েছে। রাজধানীর বাইরে মোটামুটি দেশের সব জেলা থেকেই আক্রান্ত ও হাসপাতালে ভর্তির খবর মিলছে। আক্রান্তদের বেশিরভাগই শিশু। হাসপাতালে ভর্তি থেকে চিকিৎসা নেওয়া ডেঙ্গু রোগীর তথ্য ২০০০ সাল থেকে সংরক্ষণ করে আসছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুম। তারা বলছে, এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি রোগী ভর্তি ছিল ২০১৮ সালে। ওই বছর ১০ হাজার ১৪৮ জন আক্রান্ত রোগী চিকিৎসা নেয়। এবার সেই রেকর্ডও ভেঙেছে। বিশেষজ্ঞদের ধারণা, প্রকৃত পরিস্থিতি সরকারি হিসাবের চেয়েও ভয়ঙ্কর। কেননা স্বাস্থ্য অধিদপ্তর মাত্র ৩৫টি হাসপাতালে ভর্তি হওয়া রোগীর তথ্য প্রকাশ করে। এর বাইরে ঢাকা শহরের প্রায় সব বেসরকারি হাসপাতাল ও ক্লিনিকেও অসংখ্য ডেঙ্গু রোগী চিকিৎসা নিচ্ছে। এ রকম প্রতিষ্ঠান আছে প্রায় সাড়ে ৩০০। বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি হাসপাতালের বহির্বিভাগে এবং চিকিৎসকদের ব্যক্তিগত চেম্বারে কত রোগী চিকিৎসা নিচ্ছেন, সেই হিসাব সরকার বা কারও কাছে নেই। ডেঙ্গুর পাশাপাশি দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বন্যা ও বন্যা উত্তর পরিস্থিতির কারণে স্বাস্থ্য বিভাগের সব কর্মকর্তা-কর্মচারীর ছুটি বাতিল করা হয়েছে। একই সঙ্গে বিভিন্ন ধরনের প্রশিক্ষণে থাকা চিকিৎসকদের প্রশিক্ষণ স্থগিত করে তাদেরও চিকিৎসাকাজে যোগদান করতে বলা হয়েছে। ঈদের ছুটিতে ঢাকায় থাকা সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ঢাকা ছাড়তে সরকার নিরুৎসাহিত করছে।

Print প্রিন্ট উপোযোগী ভার্সন



Login to comment..
New user? Register..