গ্যাসে দাম বৃদ্ধির পাঁয়তারা বন্ধ না হলে কঠোর আন্দোলন

Facebook Twitter Google Digg Reddit LinkedIn StumbleUpon Email
একতা প্রতিবেদক : পুনরায় গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধির পাঁয়তারায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে বাম গণতান্ত্রিক জোট। গত ১০ জুন সংবাদপত্রে দেয়া এক যুক্ত বিবৃতিতে জোটের নেতৃবৃন্দ এ উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। বাম গণতান্ত্রিক জোট কেন্দ্রীয় পরিচালনা পরিষদের সমন্বয়ক বাসদ নেতা বজলুর রশীদ ফিরোজ ও পরিচালনা পরিষদের সদস্য কমরেড মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম, কমরেড খালেকুজ্জামান, কমরেড শাহ আলম, কমরেড সাইফুল হক, কমরেড মুবিনুল হায়দার চৌধুরী, জোনায়েদ সাকি, মোশাররফ হোসেন নান্নু, মোশরেফা মিশু, হামিদুল হক, শুভ্রাংশু চক্রবর্ত্তী, অধ্যাপক আব্দুস সাত্তার, আকবর খান, ফিরোজ আহমেদ এ বিবৃতিতে বলেন, জ্বালানি খাতের সংকটের জন্য সরকারের দুর্নীতি, ভুলনীতিই দায়ী, এর খেসারত কেন জনগণ দেবে? বিবৃতিতে বলা হয়, গত মার্চে এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন গ্যাসের দাম বৃদ্ধির গণশুনানী করেছে। কিন্তু আইনে আছে কোনো প্রতিষ্ঠান লাভজনক থাকলে দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব করতে পারবে না এবং এজন্য গণশুনানী হতে পারে না। বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, রেগুলেটরি কমিশন ও সরকার নিজেদের তৈরি আইন নিজেরাই ভঙ্গ করে চলেছেন। গ্যাসের ৬টি বিতরণ কোম্পানির মধ্যে ৫টি লাভে আছে, ১টি লোকসানে আর ১টি সঞ্চালন কোম্পানিও লাভে আছে। ফলে আইন অনুযায়ী কমিশনের গণশুনানী অবৈধ। বাম জোটের পক্ষ থেকে গণশুনানীতে উপস্থিত হয়ে এ যুক্তি তুলে ধরা হয়। কমিশন এর কোন সদুত্তর দিতে পারেনি। বাম জোট এর পক্ষ থেকে গ্যাসের অযৌক্তিক দাম বৃদ্ধির পাঁয়তারা বন্ধের জন্যও আহ্বান জানানো হয় গণশুনানীতে। বিবৃতিতে গ্যাস ও জ্বালানি খাতে সরকারের ভুলনীতি ও দুর্নীতি বন্ধ এবং অযৌক্তিক দাম বৃদ্ধির পাঁয়তারা বন্ধের দাবি জানানো হয়। অন্যথায় জনগণকে সাথে নিয়ে কঠোর আন্দোলনের কর্মসূচি ঘোষণার হুঁশিয়ারী প্রদান করা হয়।

Print প্রিন্ট উপোযোগী ভার্সন



Login to comment..
New user? Register..