কী ও কেন

অ্যানিমিয়া কী?

Facebook Twitter Google Digg Reddit LinkedIn StumbleUpon Email
রক্তের নানাবিধ ব্যাধি প্রকাশ করতেই অ্যানিমিয়া শব্দটি ব্যবহৃত হয়। যখন রক্তে স্বাভাবিক পরিমাণ হিমোগ্লোবিন বা লোহিত রক্তকণিকা থাকে না তখনই এ ব্যাধি দেখা যায়। অ্যানিমিয়ার পেছনে মূল কারণ স্বল্প রক্ত উৎপাদন, কোষ নষ্ট হওয়া বা অতিরিক্ত রক্তক্ষরণ। এর ফলে নানা ধরনের শারীরিক অসুখও দেখা যায়। কোনোভাবে আঘাতপ্রাপ্ত হয়ে অতিরিক্ত রক্ত ঝরলে এক ধরনের অ্যানিমিয়া দেখা দেয়। শরীরের অন্যান্য তরল রক্তের সাথে মেশে, যার ফলে অ্যানিমিয়া হয়। আরেক ধরনের অ্যানিমিয়া হয় যদি অতিমাত্রায় লোহিত রক্তক্ষণিকা নষ্ট হয়। এটি অনেক সময় বংশগত সূত্রে অথবা অনেক জ্বর, অ্যালার্জি বা লিউকোমিয়া থেকে হতে পারে। আরেক ধরনের অ্যানিমিয়া আছে যাকে নিউটিসনাল অ্যানিমিয়া বলে। সবচেয়ে সাধারণ ও কম মারাত্মক এই ধরনের অ্যানিমিয়া। লোহিত রক্তকণিকা উৎপাদনের জন্য যখন যথেষ্ঠ আয়রণ থাকে না তখনই এমনটি দেখা যায়। দেহে হিমোগ্লোবিন উৎপাদনের জন্য আয়রণ প্রয়োজন। আমরা যেসব খাবার খাই তাতে সামান্য আয়রণ থাকে। অনেকের পক্ষে আয়রণ সমৃদ্ধ খাবার খাওয়ার সামর্থ্য থাকে না, যেমন সব সময় প্রয়োজনীয় মাংস, ডিম, সবজি খাওয়া হয়ে ওঠে না। তাই আয়রণের অভাব খুব অস্বাভাবিক কিছু নয়। অ্যানিমিয়ার লক্ষণগুলো হচ্ছে নিঃশ্বাস নিতে সমস্যা হওয়া, হঠাৎ অজ্ঞান হয়ে যাওয়া। রোগী যথেষ্ট বিশ্রামের সুযোগ পেলে সহজে এ সমস্যা কাটিয়ে উঠতে পারে।

Print প্রিন্ট উপোযোগী ভার্সন



Login to comment..
New user? Register..