আবার বাড়ছে তেলের দাম

Facebook Twitter Google Digg Reddit LinkedIn StumbleUpon Email
একতা বিদেশ ডেস্ক : করোনাভাইরাসের টিকাদান শুরু হওয়ায় ভোক্তা পর্যায়ে চাহিদা বৃদ্ধি এবং উৎপাদকেরা উত্তোলন সীমিত করায় বাজারে জ্বালানি তেলের দাম বিগত ১৩ মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ পর্যায়ে পৌঁছেছে। ব্রেন্ট ক্রুড তেলের দাম ৯২ সেন্টস বেড়ে বিক্রি হয়েছে প্রতি ব্যারেল ৬৩.৩৫ ডলারে। গত বছরের ৮ জানুয়ারি ৬০.৯৫ ডলারে বিক্রি হওয়ার পর এটাই সর্বোচ্চ দর। কয়েক সপ্তাহ ধরে বাড়ছে তেলের দাম। তেল রফতানিকারক দেশগুলোর জোট ওপেক সদস্যরা উৎপাদন সীমিত করে রাখায় জ্বালানির দাম বাড়ছে বলে মনে করা হচ্ছে। এদিকে নরওয়ের সবচেয়ে বড় তেল লোডিং টার্মিনালের কর্মীরা ধর্মঘটে যাওয়ার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন। তারা ধর্মঘট করলে দেশটির তেল সরবরাহ কমে যাবে প্রায় এক-তৃতীয়াংশ। ধারণা করা হচ্ছে, এ কারণে বিশ্ববাজারে তেলের দাম আরও বেড়ে যেতে পারে। যুক্তরাষ্ট্রে ওয়েস্ট টেক্সাস ইন্টারমিডিয়েটে (ডব্লিউটিআই) অপরিশোধিত তেলের দাম ১ দশমিক শূন্য ৪ ডলার বা ১ দশমিক ৮ শতাংশ বেড়ে ব্যারেলপ্রতি দাঁড়িয়েছে ৬০ দশমিক ৫১ ডলারে, গত বছরের ৮ জানুয়ারির পর যা সর্বোচ্চ। গত সপ্তাহে তেলের দাম বেড়েছে প্রায় ৫ শতাংশ। রাশিয়ার উপ-প্রধানমন্ত্রী আলেক্সান্ডার নোভ্যাক বলেছেন, বিশ্বের তেলের বাজার আবারও আগের অবস্থায় ফিরে আসার পথে রয়েছে। আর এই বছর তেলের গড় দাম ৪৫-৬০ ডলার হতে পারে। তিনি বলেন, ‘গত কয়েক মাসে আমরা কিছুটা বিচ্যুতি দেখেছি। এর অর্থ হলো বাজারে ভারসাম্য আছে আর বর্তমানে যে দাম দেখা যাচ্ছে তার সঙ্গে বাজার পরিস্থিতির সামঞ্জস্য রয়েছে।’

Print প্রিন্ট উপোযোগী ভার্সন



Login to comment..
New user? Register..